• শুক্রবার   ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২০ ||

  • আশ্বিন ৩ ১৪২৭

  • || ৩০ মুহররম ১৪৪২

দৈনিক গোপালগঞ্জ
৫০

উবারে যাওয়া যাবে দেশের যেকোনো জায়গায়

দৈনিক গোপালগঞ্জ

প্রকাশিত: ১২ সেপ্টেম্বর ২০২০  

লকডাউন জীবন মানুষকে আধুনিক তথ্যপ্রযুক্তি ব্যবহারে অভ্যস্ত করে তুলেছে। দীর্ঘ লকডাউনের পর নতুনভাবে স্বাভাবিক জীবনযাত্রায় ফিরতে চাই উন্নত প্রযুক্তির ব্যবহার। প্রযুক্তির সহায়তায় রাইড শেয়ারিং সেবা উবার লকডাউন-পরবর্তী সময়ে নতুন পরিকল্পনা নিয়ে যাত্রা শুরু করেছে বাংলাদেশে। 

আগে শুধু ঢাকা এবং দু-একটি বিভাগীয় শহরে উবারের কর্মকাণ্ড সীমাবদ্ধ ছিল, সেটা এখন বিস্তৃত হয়েছে সারাদেশে উবার ইন্টারসিটি সেবার মাধ্যমে। নতুন যাত্রায় ক্যাশ লেনদেন ছাড়া মোবাইল ব্যাংকিং বিকাশের মাধ্যমে সেবা দিতে সম্প্রতি বিকাশের সঙ্গে উবারের চুক্তি সই হয়েছে। 

বাংলাদেশে উবারের নতুন কার্যক্রম নিয়ে এসব তথ্য জানান উবার এশিয়া-প্যাসিফিক অঞ্চলের বিজনেস ডেভেলপমেন্ট ডিরেক্টর নন্দিনী মহেশ্বরী।

তিনি জানান, সম্প্রতি উবার অ্যাপে পেমেন্ট অপশনে ডিজিটাল ওয়ালেট হিসেবে বিকাশ যুক্ত হয়েছে। এর কারণ করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে এ পর্যন্ত উবার সরকারি সব নির্দেশনা মেনে চলেছে। অচলাবস্থা কাটিয়ে সবকিছু যখন আবার স্বাভাবিক হতে শুরু করেছে, তখন যাত্রীদের জন্য নির্ভরযোগ্য, নিরাপদ ও সাশ্রয়ী পরিবহন সেবা নিশ্চিত করতে যথাসাধ্য চেষ্টা করে যাচ্ছে উবার। বিকাশের সঙ্গে এই অংশীদারিত্ব পেমেন্ট অপশনকে স্পর্শবিহীন, নিরাপদ ও ঝামেলামুক্ত করবে। ফলে গ্রাহক ক্রেডিট কার্ড, নগদ টাকা ও ভাংতি টাকার ঝামেলা ছাড়াই রাইডের ভাড়া বিকাশ অ্যাকাউন্ট থেকে খুব সহজেই পরিশোধ করতে পারবেন। উবারের পেমেন্ট অপশনে একবার বিকাশ অ্যাকাউন্ট যুক্ত করলে পরবর্তী সব রাইডের ভাড়া স্বয়ংক্রিয়ভাবে পরিশোধ হয়ে যাবে।

এছাড়াও মহামারির সতর্কতা হিসেবে চালকদের নিরাপত্তাসামগ্রী প্রদান করতে উবারের নিরাপত্তা ও প্রযুক্তি টিম নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে, যেন প্রত্যেক উবার ব্যবহারকারী সুরক্ষিত থাকেন। এর অংশ হিসেবে চালকদের বিভিন্ন নিরাপত্তাসামগ্রী যেমন- মাস্ক, হ্যান্ড স্যানিটাইজার, সাবান, টিস্যু পেপার বিতরণ করা হচ্ছে নিয়মিত।

একই সঙ্গে উবারের অ্যাপেও নতুন কিছু সেফটি ফিচার যোগ করা হয়েছে। যেমন- চালক ও যাত্রী উভয়ের জন্য বাধ্যতামূলক মাস্ক ব্যবহার নীতি, চালকদের জন্য যাত্রা শুরুর আগে মাস্ক যাচাইকরণ সেলফি, চালকদের করোনাভাইরাস সম্পর্কিত সেফটি প্রটোকল এবং গাড়ি জীবাণুমুক্তকরণ প্রক্রিয়াসহ সঠিকভাবে স্বাস্থ্যবিধি মানা হচ্ছে কিনা তা নিশ্চিত করতে চালক ও যাত্রী উভয়ের জন্যই ফিডব্যাক দেয়ার ব্যবস্থা করা হয়েছে। যদি কেউ স্বাস্থ্যবিধি মেনে না চলে, তাহলে অ্যাকাউন্ট বন্ধ করে দেয়া হবে।

তিনি আরো জানান, নতুন যাত্রায় উবার রেন্টাল সার্ভিস সংযুক্ত করা হয়েছে। এর মাধ্যমে সুলভ মূল্যে যাত্রীরা একবার গাড়ি ভাড়া করে পছন্দমতো একাধিক গন্তব্যে যেতে পারবেন। এই সেবার আরো একটি দিক হচ্ছে, উবার ইন্টারসিটি। যার মাধ্যমে উবারের ভাড়া করা গাড়ি নিয়ে বাংলাদেশের সব জায়গায় যাওয়া যাবে। ফলে লকডাউন-পরবর্তী সময়ে উবারের সেবা আগের চেয়ে বেশি বিস্তৃত হয়েছে।

তিনি বলেন, বাংলাদেশে উবার আরো সাশ্রয়ী এবং উন্নত সেবা নিশ্চিত করতে অদূর ভবিষ্যতে কিছু নতুন উদ্ভাবন নিয়ে আসবে। ঢাকা উবারের অগ্রাধিকার তালিকায় আছে।

দৈনিক গোপালগঞ্জ
দৈনিক গোপালগঞ্জ
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর