• শুক্রবার   ০৫ জুন ২০২০ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ২২ ১৪২৭

  • || ১৩ শাওয়াল ১৪৪১

দৈনিক গোপালগঞ্জ
৬৩

করোনাজয়ী গোপালগঞ্জের ১৮ পুলিশ

দৈনিক গোপালগঞ্জ

প্রকাশিত: ১১ মে ২০২০  

করোনাভাইরাসকে জয় করে দায়িত্বে ফেরার প্রস্তুতি নিচ্ছেন তাঁরা ১৮ জন। সবাই পুলিশ সদস্য। দায়িত্বরত গোপালগঞ্জের মুকসুদপুর থানায়। গত এপ্রিল মাসে তাঁরা করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হন। এর পর থেকে দীর্ঘদিন ধরে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলে এখন পুরোপুরি সুস্থ। করোনা জয়ের পাশাপাশি তাঁরা ভয়কেও জয় করেছেন। ভয় না পেয়ে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চললে করোনাকে জয় করা যায়—এমন মন্তব্য তাঁদের।

মুকসুদপুর থানার পুলিশ সদস্য মহিউদ্দিন আহম্মেদ করোনার উপসর্গ নিয়ে মানিকগঞ্জে নিজ বাড়িতে যান গত ৯ এপ্রিল। পরে নমুনা পরীক্ষা করে জানতে পারেন যে তিনি করোনা আক্রান্ত। এরপর থানার সব পুলিশ সদস্য অর্থাত্ ৭১ জনেরই নমুনা পরীক্ষা করা হয়। এর মধ্যে ১৮ জনের শরীরে করোনার অস্তিত্ব ধরা পড়ে। এরপর থানার সব সদস্যকে মুকসুদপুর ডিগ্রি কলেজের একটি ভবনে প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টিনে এবং অন্য একটি ভবনে আইসোলেশনে রেখে চিকিৎসা দেওয়া হয়। সব মিলিয়ে মুকসুদপুর থানার মোট ১৯ সদস্য করোনায় আক্রান্ত হন। বর্তমানে একজন ছাড়া (ঢাকায় পুলিশ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন) সবাই সুস্থ হয়ে উঠেছেন। তাঁরা এখন কাজে যোগ দেওয়ার অপেক্ষায়।

করোনাজয়ীদের একজন এএসআই মিজানুর রহমান বলেন, ‘নমুনা পরীক্ষায় করোনা পজিটিভ হওয়ার খবর পেয়ে প্রথমে একটু ভয় লেগেছিল। পরে দেখলাম জ্বর বা সর্দি-কাশির কোনো উপসর্গ নেই। দুশ্চিন্তা না করে স্বাস্থ্যবিধি মানলে কোনো সমস্যাই মনে হবে না। আর এ রোগের ওষুধ বলতে খেয়েছি দিনে তিন-চারবার আদা, দারুচিনি, লবঙ্গ ও এলাচ মিশ্রিত গরম পানি। আর এভাবেই আমরা ১৮ জন ভালো হয়েছি।’ করোনাজয়ী কনস্টেবল আফজাল হোসেন, জাকির হোসেন, লিয়াকত হোসেন, ফজলুল হক, মিল্টন, আজাদ, বিল্লালসহ আরো বেশ কয়েকজনের সঙ্গে কথা বলেও একই ধরনের বক্তব্য পাওয়া গেছে।

দৈনিক গোপালগঞ্জ
দৈনিক গোপালগঞ্জ
গোপালগঞ্জ বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর