• বৃহস্পতিবার   ০৪ জুন ২০২০ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ২১ ১৪২৭

  • || ১২ শাওয়াল ১৪৪১

দৈনিক গোপালগঞ্জ
৬২৬

করোনা চিকিৎসা দিতে গিয়ে মৃত সেই ডাক্তারকে নিয়ে ফখরুলের রাজনীতি !

দৈনিক গোপালগঞ্জ

প্রকাশিত: ১৭ এপ্রিল ২০২০  

করোনা চিকিৎসা দিতে গিয়ে মৃত্যুবরণকারী ওসমানী মেডিকেল কলেজের চিকিৎসক ডা. মঈনউদ্দিনকে নিয়ে এবর রাজনীতিতে নেমেছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। শুক্রবার বিএনপি চেয়ারপারসনের গুলশান কার্যালয়ে তিনি সাংবাদিক সম্মেলনে বলেন, সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজের সহকারী অধ্যাপক ডা. মঈন উদ্দিনের মৃত্যুই দেশে স্বাস্থ্য ব্যবস্থার ভঙ্গুর অবস্থার চিত্র প্রমাণ করেছে। তার এ বক্তব্যের প্রতিবাদ জানিয়েছেন দেশের চিকিৎসক সমাজ ও সচেতন মহল।

সচেতন মহল বলছেন, বিশ্বের বিভিন্ন উন্নত দেশ করোনা মোকাবেলায় হিমশিম খাচ্ছে। এ অবস্থায় যথেষ্ট সীমাবদ্ধতা থাকলেও বাংলাদেশ করোনা মোবালোয় যথেষ্ট দক্ষতার পরিচয় দিয়েছে। যা আর্ন্তজাতিক মহলে প্রশংসিত হয়েছে।

তারা আরো বলেন, করোনা একটি অতি ছোঁয়াচে রোগ।  ইটালীর মত উন্নত দেশে ১২২ জন চিকিৎসক মারা গেছেন। স্পেনে ২৭ হাজার চিকিৎসা কর্মী করোনা আক্রান্ত হয়েছে। যুক্তরাজ্যে ৩০ জন চিকিৎসক মারা গেছেন। ফিলিপাইনে ১২ জন চিকিৎসক মারা গেছেন। চীনেও অসংখ্য চিকিৎসক মারা গেছেন সেবা দিতে গিয়ে। এসকল দেশের স্বাস্থ্য ব্যবস্থা সর্বোচ্চ মানের হলেও চিকিৎসা সেবা দিতে গিয়ে চিকিৎসকরা মারা যাচ্ছেন। চিকিৎসকদের মৃত্যু দু:খজনক হলেও অস্বাভাবিক কোনো ঘটনা নয়।

রাজনৈতিক মহল বলছেন, করোনায় মৃত ডা. মঈনউদ্দিনকে রাষ্ট্রের পক্ষ হতে প্রয়োজনীয় সব ধরণের চিকিৎসা দেয়া হয়েছিল। প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা তার মৃত্যুতে ব্যক্তিগতভাবে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন। মৃতের পরিবারের দায়িত্বও নিয়েছে সরকার। কাজেই মির্জা ফখরুলের দাবি সম্পূর্ণ অবান্তর, মিথ্যা এবং উদ্দেশ্য প্রনোদিত।

বিশিষ্ট রাজনৈতিক বিশ্লেষক ড. আমিরুল ইসলাম বলেন, বিএনপি সবসময় নোংরা রাজনীতির খেলা খেলে অভ্যস্ত। এ অবস্থায় সরকারকে দোষারোপ না করে বিএনপির উচিৎ সাধারণ মানুষের পাশে গিয়ে দাঁড়ানো। করোনা নিয়ে রাজনীতি করলে ইতিহাসের আস্তাকুঁড়ে নিক্ষিপ্ত হবেন মির্জা ফখরুল।  
 

দৈনিক গোপালগঞ্জ
দৈনিক গোপালগঞ্জ
রাজনীতি বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর