• রোববার ১৪ জুলাই ২০২৪ ||

  • আষাঢ় ৩০ ১৪৩১

  • || ০৬ মুহররম ১৪৪৬

দৈনিক গোপালগঞ্জ

প্রেম করেছে নাতি, মাথা ফাটলো দাদার

দৈনিক গোপালগঞ্জ

প্রকাশিত: ১৯ জুন ২০২৪  

প্রেমিকার বাড়ির সামনের রাস্তা দিয়ে যাওয়ার সময় প্রেমিককে মারধরের ঘটনায় দুই পক্ষের সংঘর্ষে মাথা ফেটেছে একজনের।

আহত মইনউদ্দিন আল মাইজভাণ্ডারী কর্ণফুলী উপজেলা আওয়ামী লীগের নির্বাহী কমিটির সাবেক সদস্য।

তিনি চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।
মঙ্গলবার (১৮ জুন) রাত ১০টার দিকে কর্ণফুলী উপজেলার শিকলবাহা ইউনিয়নের ২ নম্বর ওয়ার্ডের মাস্টারহাট এলাকার কোদাইল্লা পাড়ায় এ ঘটনা ঘটে।

জানা গেছে, তিন-চার মাস আগে প্রেমের সম্পর্কে জড়িয়ে স্থানীয় মো. ইলিয়াসের মেয়েকে নিয়ে পালিয়ে যান একই এলাকার মো. হারুনের ছেলে। তারা দুজনই অপ্রাপ্তবয়স্ক। পরে দুই পক্ষের লোকজন বিষয়টি স্থানীয়ভাবে সমঝোতা করেন। এরপর থেকে মেয়েটি নানার বাড়িতে ছিলেন।  

মঙ্গলবার সকালে ছেলেটি প্রেমিকার বাড়ির সামনে দিয়ে যাওয়ার সময় মেয়েপক্ষের লোকজন তাকে মারধর করেন। বিষয়টি জানতে পেরে দাদা মইনউদ্দিন আল মাইজভাণ্ডারী নাতিকে মারধরের প্রতিবাদ জানাতে রাতে লোকজন নিয়ে প্রেমিকার বাড়িতে যান। সেখানে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে দুই পক্ষের লোকজন সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েন। এ সময় উভয়পক্ষের বেশ কয়েকজন আহত হন। ইটের আঘাতে মাথা ফেটে যায় মইনউদ্দিনের।

শিকলবাহা পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ (এসআই) মো. মোবারক হোসেন বলেন, প্রেমঘটিত বিষয় নিয়ে দুইপক্ষের মধ্যে মারামারির ঘটনা ঘটেছে। প্রতিপক্ষের ছোঁড়া ইটের আঘাতে আহত একজনকে চমেক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

কর্ণফুলী থানার ওসি (তদন্ত) মো. মেহেদী হাসান জানান, শিকলবাহায় দুইপক্ষের মধ্যে মারামারির ঘটনা ঘটেছে। ঘটনাস্থলে থানা পুলিশ রয়েছে। পরিস্থিতি এখন স্বাভাবিক রয়েছে।

দৈনিক গোপালগঞ্জ
দৈনিক গোপালগঞ্জ