• রোববার ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ ||

  • ফাল্গুন ১২ ১৪৩০

  • || ১৪ শা'বান ১৪৪৫

দৈনিক গোপালগঞ্জ

মধ্যরাতে ইউক্রেনজুড়ে বিমান হামলার সতর্কতা, বিস্ফোরণ

দৈনিক গোপালগঞ্জ

প্রকাশিত: ১৯ মে ২০২৩  

ইউক্রেনজুড়ে বিমান হামলার সতর্কতার মধ্যেই দেশটির কিছু এলাকায় বিস্ফোরণের খবর পাওয়া গেছে। এসময় পূর্ব ইউরোপের এই দেশটির বিমান বিধ্বংসী ইউনিটগুলো বেশ কয়েকটি অঞ্চলে সক্রিয় করা হয়।

শুক্রবার (১৯ মে) গভীর রাতে ইউক্রেনজুড়ে বিমান হামলার সাইরেন এবং বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে বলে জানিয়েছে বার্তাসংস্থা রয়টার্স।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, শুক্রবার গভীর রাত ২টা থেকে প্রায় এক ঘণ্টার জন্য ইউক্রেনের সমস্ত অঞ্চলে বিমান হামলার সতর্কতা প্রসারিত করা হয়। কিন্তু অবকাঠামো বা বেসামরিক লক্ষ্যবস্তুতে হামলার কোনও খবর পাওয়া যায়নি এবং কিয়েভ ও মধ্য ও দক্ষিণ অঞ্চলে হামলার সতর্কতা প্রত্যাহার হওয়ায় হতাহতের কোনও ইঙ্গিতও পাওয়া যায়নি।

তবে পূর্বাঞ্চলের কিছু এলাকায় এবং পশ্চিম ইউক্রেনজুড়ে শুক্রবার ভোররাত পর্যন্ত বিমান হামলার সতর্কতা বলবৎ ছিল।

ইউক্রেনের সামরিক বাহিনী টেলিগ্রামে বলেছে, রাশিয়ান বিমান আকাশে রয়েছে এবং হাইপারসনিক কিনজল ক্ষেপণাস্ত্র থেকে হামলার হুমকি রয়েছে। পূর্ববর্তী একটি সামরিক বিবৃতিতে বলা হয়েছিল, আকাশে থাকা কিছু লক্ষ্যবস্তু ধ্বংস করা হয়েছে, তবে বিস্তারিত কিছু জানানো হয়নি।

সামরিক বাহিনী আরও বলেছে, ইউক্রেনের কেন্দ্রীয় অঞ্চলগুলো ড্রোন হামলার ঝুঁকিতে রয়েছে। মধ্য ইউক্রেনের ক্রিভি রিহ, পশ্চিমে রিভনে এবং লুতস্কসহ বেশ কয়েকটি অঞ্চলে বিস্ফোরণের খবর পাওয়া গেছে।

কিয়েভের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, রাজধানীতে বিমান বিধ্বংসী ইউনিট কাজ করছে। অন্যান্য শহর একই ধরনের বিমান বিধ্বংসী ইউনিটও সক্রিয় থাকার বিষয়ে রিপোর্ট করেছে।

রাশিয়ার তাস নিউজ এজেন্সি মস্কো-নিয়ন্ত্রিত দোনেৎস্ক অঞ্চলের রুশ-নিয়ন্ত্রিত কর্মকর্তাদের উদ্ধৃত করে বলেছে, ইউক্রেনীয় বাহিনী মধ্যরাতের পর রুশ-নিয়ন্ত্রিত দোনেৎস্ক শহরে আটটি গ্রেড ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করেছে।

অবশ্য ওই হামলায় ক্ষয়ক্ষতি বা হতাহতের কোনও বিবরণ পাওয়া যায়নি। এছাড়া তাৎক্ষণিকভাবে এসব তথ্য বা সামরিক কার্যকলাপের বিস্তারিত তথ্য যাচাই করতে পারেনি রয়টার্স।

এর আগে বৃহস্পতিবার ইউক্রেনের রাজধানী কিয়েভে নতুন করে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালায় রাশিয়া। কিয়েভ ছাড়াও কৃষ্ণসাগরীয় বন্দর নগরী ওডেসায়ও ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করে রুশ বাহিনী। এতে অন্তত একজন নিহত হন।

তবে কিয়েভে ছোঁড়া ক্ষেপণাস্ত্রগুলো ঠেকিয়ে দেওয়ার দাবি করে ইউক্রেনের সেনাবাহিনী। যদিও ধ্বংসপ্রাপ্ত ক্ষেপণাস্ত্রের ধ্বংসাবশেষ একটি বহুতল ভবনে আছড়ে পড়লে সেখানে আগুন লেগে যায়।

এর আগে গত সোমবারও কিয়েভে আকাশ, নৌ ও স্থল থেকে ‘অভাবনীয়’ ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালায় রুশ বাহিনী। এর পরের দিন দেশটির প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় জানায়, কিয়েভে হাইপারসনিক কিনজাল ক্ষেপণাস্ত্র ছুঁড়ে যুক্তরাষ্ট্রের পাঠানো প্যাট্রিয়ট আকাশ প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা ধ্বংস করা হয়েছে।

তবে তাদের এ দাবির সত্যতা নিশ্চিত করা যায়নি।

দৈনিক গোপালগঞ্জ
দৈনিক গোপালগঞ্জ