• সোমবার ১৭ জুন ২০২৪ ||

  • আষাঢ় ৩ ১৪৩১

  • || ০৯ জ্বিলহজ্জ ১৪৪৫

দৈনিক গোপালগঞ্জ

মেট্রোরেলে ভ্যাট এনবিআরের ভুল সিদ্ধান্ত : ওবায়দুল কাদের

দৈনিক গোপালগঞ্জ

প্রকাশিত: ২০ মে ২০২৪  

মেট্রোরেলের ওপর জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের ১৫ শতাংশ ভ্যাট বসানোর ঘোষণা ভুল সিদ্ধান্ত। এতে মেট্রোরেলের সুনাম নষ্ট হয় বলে মন্তব্য করেছেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

গতকাল রাজধানীর একটি পাঁচ তারকা হোটেলে ঢাকা ম্যাস ট্রানজিট কোম্পানি লিমিটেড (ডিএমটিসিএল) আয়োজিত ঢাকা মেট্রোরেলের ব্র্যান্ডিং সেমিনারে তিনি এসব কথা বলেন। সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী বলেন, আমাদের এনবিআর জনপ্রিয় পরিবহন মেট্রোরেলে হঠাৎ করে ১৫ শতাংশ ভ্যাটের ঘোষণা দিল। বিষয়টি আমি প্রধানমন্ত্রীকে জানিয়েছি। এনবিআরের এ সিদ্ধান্ত ভুল। এটি হয় না। এতে মেট্রোরেলের সুনাম নষ্ট হয়। প্রধানমন্ত্রী এটি পুনর্বিবেচনার বিষয়ে আশ্বাস দিয়েছেন। ওবায়দুল কাদের বলেন, বাংলাদেশ শেখ হাসিনার নেতৃত্বে উন্নয়নের বিস্ময়, সে দেশের রাজধানী পৃথিবীর অন্যতম খারাপ। বসবাসযোগ্য ১৪০টি দেশের মধ্যে ১৩০-এর পরে আমাদের অবস্থান। এটা দেশের উন্নয়নের সঙ্গে মেলে না। এখানে এত দামি গাড়ি চলে, কিন্তু বাসের অবস্থা এত খারাপ কেন! সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী বলেন, ‘বারবার কথাবার্তা বলেও সমাধান করা যায়নি। এ অবস্থা থেকে আমাদের মুক্তি পেতেই হবে। ঢাকায় যে বাসগুলো চলে, এগুলো দেখলে আমার লজ্জা লাগে। আমাদের মালিক সাহেবরা কি বিদেশ যান না, দেখেন না’ তিনি বলেন, আজকে আমাদের বুড়িগঙ্গা শেষ, কর্ণফুলীও শেষ। এখন মুখে বক্তব্য দিয়ে লাভ নেই। এতবার অনুরোধ করেছি। কাজ হচ্ছে না। মেট্রোরেল আমাদের সম্পদ। ২০৩০ সালে ছয়টি এমআরটি লাইনের কাজ শেষ হবে। এগুলোর মধ্যে দুটিই পাতাল রেল। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার যে পরিকল্পনা, ঢাকা সেটিরই অবিচ্ছেদ্য অংশ। সড়ক ও মহাসড়ক বিভাগের সচিব এ বি এম আমিনুল্লাহ নূরীর সভাপতিত্বে সেমিনারে আরও বক্তব্য রাখেন সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি রেজওয়ান আহমেদ তৌফিক, ঢাকা উত্তর সিটি মেয়র আতিকুল ইসলাম, বাংলাদেশে নিযুক্ত জাপানের রাষ্ট্রদূত ইয়োমা কিমিনুরি, জাইকা বাংলাদেশ অফিসের মুখ্য প্রতিনিধি ইচিগুচি তমোহিদে ও ডিএমটিসিএলের ব্যবস্থাপনা পরিচালক এম এ এন সিদ্দিক।

অনুষ্ঠান শেষে ‘নির্বাচনে আওয়ামী লীগের লোকজনই ভোট দিতে আসেনি’- বিএনপি নেতাদের এমন দাবি প্রসঙ্গে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, বিএনপির এ দাবি সত্য নয়। নির্বাচন কমিশন জানিয়েছে, উপজেলা নির্বাচনে প্রথম ধাপে ৩০ থেকে ৪০ শতাংশ ভোট পড়েছে। জাতীয় নির্বাচনে ভোট পড়েছে ৪২ শতাংশেরও বেশি। তারা কি এ দেশের মানুষ নয়? ৪২ শতাংশ যদি ভোট পড়ে, তাহলে ভোটাররা নির্বাচন প্রত্যাখ্যান করলেন কেমন করে? আসলে বিএনপি নেতারা মানসিক ট্রমায় ভুগছেন, যা খুশি তাই বলেন ফ্রি স্টাইলে। বাস্তবতা নেই। তারা বাস্তবতা থেকে অনেক দূরে। বিএনপি আবারও আন্দোলনের প্রস্তুতি নিচ্ছে, এমন প্রশ্নে ওবায়দুল কাদের বলেন, রাজনৈতিক দল হিসেবে বিএনপির আন্দোলন করার অধিকার আছে। আন্দোলন শান্তিপূর্ণ হলে আমরা রাজনৈতিকভাবেই মোকাবিলা করব। আর যদি আন্দোলন রূপ নেয় আগুন সন্ত্রাসে, যে চেহারা তারা অতীতে দেখিয়েছে, তাহলে সরকার উদ্ভূত পরিস্থিতিতে ব্যবস্থা নেবে। রাজনৈতিকভাবে আমরাও মোকাবিলা করব।

দৈনিক গোপালগঞ্জ
দৈনিক গোপালগঞ্জ