ব্রেকিং:
করোনায় সারাদেশে আরও ৯ জনের প্রাণহানি, শনাক্ত ২৭৫ খোলা বাজারে ডলারের মূল্য ৯০ টাকা ছাড়ালো স্বপ্নের পায়রা সেতু উদ্বোধন করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ৬ খুনের ঘটনায় মামলা, গ্রেফতার ১০
  • সোমবার   ২৫ অক্টোবর ২০২১ ||

  • কার্তিক ১০ ১৪২৮

  • || ১৮ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

দৈনিক গোপালগঞ্জ

জয়কে অপহরণ চেষ্টার নেপথ্যে খালেদা-তারেক: সংসদে বক্তারা

দৈনিক গোপালগঞ্জ

প্রকাশিত: ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১  

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ছেলে ও তার তথ্য এবং যোগাযোগ প্রযুক্তি বিষয়ক উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয়কে অপহরণের চেষ্টার নেপথ্যে বিএনপির ‘হাইকমান্ডকে’ চিহ্নিত করার দাবি উঠেছে। শনিবার (২৫ সেপ্টেম্বর) সংসদের অনির্ধারিত আলোচনায় বক্তরা এ দাবি করেন। 

তারা বলেন, যুক্তরাষ্ট্রের একটি আদালত রায় দিয়েছেন, সজীব ওয়াজেদকে অপহরণের চেষ্টা হয়েছিল। রায়ে সাজাপ্রাপ্ত রিজভী আহমেদ বলেছেন, এর সঙ্গে বিএনপির হাইকমান্ড জড়িত। তাদের পরামর্শে তিনি অপহরণ প্রক্রিয়ার সঙ্গে জড়িত হন। এর মানে বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া ও সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমান এই ষড়যন্ত্রের সঙ্গে জড়িত। 

শিল্পমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ বলেন, আমেরিকার বিচার বিভাগের ওয়েবসাইটে প্রকাশ হয়েছে বিএনপির হাইকমান্ডের নির্দেশে সজীব ওয়াজেদকে অপহরণের চেষ্টা করা হয়েছিল। সজীব প্রতিভাবান আইটি বিশেষজ্ঞ। তাকে অপহরণ করার চেষ্টা হয়েছে হত্যার উদ্দেশ্যে। এর আগে ২০০৪ সালে গ্রেনেড মেরে শেখ হাসিনাকে হত্যার চেষ্টা করেছিল। তারা এখনো বসে নেই। সাজাপ্রাপ্ত আসামি রিজভী আহমেদ ও রবার্ট লস্টিক বলেছে, পরিকল্পনার সঙ্গে বিএনপির হাইকমান্ড জড়িত। এই হাইকমান্ড কে? এদের ধরে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিতে হবে।

সুরঞ্জিত সেনগুপ্ত বলেন, রিজভী আহমেদ বলেছে বিএনপির হাইকমান্ডের নির্দেশে সে ষড়যন্ত্রের সঙ্গে জড়িত হয়। আওয়ামী লীগের হাইকমান্ড বলতে নিশ্চয় তোফায়েল আহমেদ, আমির হোসেন আমুকে বোঝানো হয় না। শেখ হাসিনাকে বোঝানো হয়। সুতরাং বিএনপির হাইকমান্ড মানে খালেদা জিয়া। খালেদার পরে তারেক। এই হাইকমান্ড জিয়ার বংশধর। এ নিয়ে সন্দেহের অবকাশ নেই।

শেষে ডিপুটি স্পিকার ফজলে রাব্বী মিয়া বলেন, আন্তর্জাতিক এই ষড়যন্ত্রকে ছোট করে দেখার সুযোগ নেই। আইন, স্বরাষ্ট্র ও পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের উচিত হবে রায়ের কপি সংগ্রহ করে পর্যালোচনা করা। পর্যালোচনা করে তদন্ত করতে হবে।

দৈনিক গোপালগঞ্জ
দৈনিক গোপালগঞ্জ